ভিতরে

লক্ষ্মীপুরে একটি সংসদীয় আসন ও ৬টি ইউপি নির্বাচনের ভোট গ্রহণ

জেলার একটি সংসদীয় আসন এবং ৬টি ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে আজ সোমবার সকাল ৮টা থেকে ভোটগ্রহণ শুরু হয়েছে। ঝড়-বৃষ্টি উপেক্ষা করে কমলনগর উপজেলার চর পাগলা সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ও ফলকন মাওলানাপাড়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় কেন্দ্রে ভোটারদের লম্বা লাইন দেখা যায়। একইভাবে অন্যান্য ভোট কেন্দ্র গুলোতে ভোটারদের সরব উপস্থিতি লক্ষ্য করা যাচ্ছে। শান্তিপূর্ণভাবে অবাধ, সুষ্ঠু ও নিরপেক্ষ নির্বাচন নিশ্চিত করতে নির্বাচন কমিশন কঠোর অবস্থানে রয়েছে বলে নিশ্চিত করেছেন রিটার্ণিং কর্মকর্তা মো. দুলাল তালুকদার।
তিনি জানান, সার্বিক আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে মোবাইল ও স্ট্রাইকিং ফোর্সের মাধ্যমে নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট, পুলিশ, র‌্যাব, বিজিবি, কোস্ট গার্ড, এপিবিএন ও আনসার ব্যাটালিয়ন নিয়োগ করা হয়েছে। লক্ষ্মীপুর-২ (রায়পুর ও সদর আংশিক) সংসদীয় আসনের নির্বাচনী এলাকায় ২২ জন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটের নেতৃত্বে ২০টি মোবাইল ফোর্স এবং ১০টি স্ট্রাইকিং ফোর্স ও ১০ প্লাটুন বিজিবি মোতায়েন করা হয়েছে। এছাড়াও ইউনিয়ন পরিষদ নির্বাচনে কমলনগর ও রামগতি উপজেলার প্রতিটি ইউনিয়নে পুলিশ, এপিবিএন ও ব্যাটালিয়ন আনসারের সমন্বয়ে ১টি করে মোবাইল ফোর্স নিয়োজিত রয়েছে। এক্ষেত্রে প্রত্যেক উপজেলায় ১ জন নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেটের নেতৃত্বে পুলিশ, এপিবিএন ও ব্যাটালিয়ন আনসারের ১টি স্ট্রাইকিং ফোর্স এবং র‌্যাব, বিজিবি ও কোস্ট গার্ডের পৃথক পৃথক মোবাইল টিম ও স্ট্রাইকিং ফোর্স সক্রিয়ভাবে কাজ করছে।
নির্বাচন কমিশন সূত্র জানায়, মোহাম্মদ শহীদ ইসলাম ওরফে কাজী পাপুলের এমপি পদ বাতিলের পর লক্ষ্মীপুর-২ (রায়পুর ও সদর আংশিক) আসনে উপনির্বাচন হচ্ছে। এতে সংসদ সদস্য পদে আওয়ামী লীগের নৌকা প্রতীকে নুর উদ্দিন চৌধুরী নয়ন এবং জাতীয় পার্টির লাঙল প্রতীকে শেখ মোহাম্মদ ফায়িজ উল্যাহ শিপন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। এ আসনের ১টি পৌরসভা এবং ১৯টি ইউনিয়নে সর্বমোট ৩ লক্ষ ৭২ হাজার ৫৯২ জন ভোটার রয়েছেন। ১৩৬টি কেন্দ্রের ৯৭৯টি ভোটকক্ষে ইভিএমের মাধ্যমে ভোটগ্রহণ চলছে।
অন্যদিকে মেয়াদকাল শেষ হওয়ায় জেলার কমলনগর উপজেলার ৩টি এবং রামগতি উপজেলার ৩টি ইউনিয়ন পরিষদের নির্বাচন হচ্ছে। এক্ষেত্রে গোপন ব্যালট পেপারের মাধ্যমে ভোটগ্রহণ চলছে।
কমলনগর উপজেলার ৩টি ইউনিয়নের মধ্যে হাজিরহাট ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান পদে ৯ জন, সাধারণ সদস্য পদে ৪৬ জন এবং সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পদে ১৬ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। এখানে মোট ভোটার সংখ্যা ২৩ হাজার ৬৫৭। তোরাবগঞ্জ ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান পদে ৬ জন, সাধারণ সদস্য পদে ৩৫ জন এবং সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পদে ১৪ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। এখানে মোট ভোটার সংখ্যা ১৬ হাজার ৬১৫। চর ফলকন ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান পদে ৮ জন, সাধারণ সদস্য পদে ৪৪ জন এবং সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পদে ১৩ জন প্রার্থী প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। এখানে মোট ভোটার সংখ্যা ১৪ হাজার ৫৬৬।
রামগতি উপজেলার ৩টি ইউনিয়নের মধ্যে চর বাদাম ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান পদে ৬ জন, সাধারণ সদস্য পদে ৩৭ জন এবং সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পদে ১২ জন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। এখানে মোট ভোটার সংখ্যা ১৭ হাজার ২৬। চর পোড়াগাছা ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান পদে ৫ জন, সাধারণ সদস্য পদে ৪০ জন এবং সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পদে ১৪ জন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। এখানে মোট ভোটার সংখ্যা ২২ হাজার ৭০৩। চর রমিজ ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান পদে ৬ জন, সাধারণ সদস্য পদে ৪৯ জন এবং সংরক্ষিত মহিলা সদস্য পদে ১৪ জন প্রতিদ্বন্দ্বিতা করছেন। এখানে মোট ভোটার সংখ্যা ২৮ হাজার ৬৬৪।
আজ সোমবার বিকেল ৪টা পর্যন্ত বিরতিহীনভাবে ভোটগ্রহণ চলবে। এরপর ভোট গণনা শেষে ফলাফল ঘোষণা করা হবে।

আপনি কি মনে করেন?

0 টি পয়েন্ট
উপনোট ডাউনভোট
উত্তর দিন

মন্তব্য করুন

সিলেট বিভাগে একদিনে করোনায় আরও ২ জনের মৃত্যু

শেখ হাসিনা হত্যাচেষ্টা মামলায় দন্ডিত ৭ আসামির জামিন স্থগিতই থাকছে