ভিতরে

কানাডায় দাবানল ॥ পরিস্থিতি মোকাবিলায় প্রস্তুত সেনাবাহিনী

কানাডা সরকার দেশটিতে তীব্র তাপদাহ ও শুষ্ক আবহাওয়ায় ছড়িয়ে পড়া ১৭০ টিরও বেশী দাবানল মোকবিলায় এবং শহরগুলো খালি করার জন্য সহায়তার দিতে শনিবার থেকে সেনাবাহিনী প্রস্তুত রেখেছে। অটোয়া সরকার সামনে দীর্ঘ এবং চ্যালেঞ্জিং গ্রীষ্ম মোকাবিলায় সকলকে সতর্ক করেছে। 
কানাডার পশ্চিমাঞ্চলীয় প্রদেশ ব্রিটিশ কলম্বিয়ায় অন্তত ১৭৪ টি দাবানল সক্রিয় রয়েছে, এরমধ্যে ৭৮ টি গত দুই দিনে ছড়িয়ে পড়েছে, বেশীর ভাগ দাবানল তীব্র বজ্রপাতের কারণে সৃষ্টি হয়েছে। 
ভ্যাঙ্কুভারের ৩৫০ কিলোমিটার (২২০ মাইল) উত্তর পূর্বে ক্যামলপস সিটির উত্তরে এই দাবানল সৃষ্টি হয়েছে।
ব্রিটিশ কলম্বিয়ার ওয়াইল্ডফায়ার সার্ভিসের প্রাদেশিক অপারেশন প্রধান ক্লিফ চ্যাপমান বলেন, “আমরা গতকাল ১২ হাজারের মতো বজ্রপাত দেখেছি।” 
“ব্রিটিশ কলম্বিয়ায় শুষ্ক আবহাওয়া এবং তীব্র তাপদাহ অস্বাভাবিক অবস্থায় রয়েছে” উল্লেখ করে জননিরাপত্তা মন্ত্রী বিল ব্লেয়ার শুক্রবার বলেছেন, “এতে বোঝা যায় আমরা দাবানলের প্রাথমিক অবস্থায় রয়েছি এবং আমাদের দীর্ঘ সময় গ্রীষ্মের চ্যালেঞ্জ মোকাবিলা করতে হবে।” 
শুক্রবার স্থানীয়, প্রাদেশিক এবং আদিবাসী নেতাদের সঙ্গে কথা বলার পর প্রধানমন্ত্রী জাস্টিন ট্রুডো বিভিন্ন মন্ত্রনালয়সহ জরুরি পরিস্থিতি মোকাবিলায় নিয়োজিত গ্রুপগুলোর সঙ্গে বৈঠক করেছেন। এসময় তিনি সাংবাদিকদের বলেন, “আমরা তাদের সহযোগিতা দেব।”
প্রতিরক্ষামন্ত্রী হরজিত সজ্জন জানিয়েছেন, জরুরি পরিস্থিতি মোকাবিলা গ্রুপ বলেছে যে তারা এডমন্টনে একটি অপারেশন সেন্টার স্থাপন করবে, যেখানে ৩৫০ জন সামরিক সদস্য ওই অঞ্চলে লজিস্টিক সহায়তা দেবে। ইতোমধ্যেই সেখানে সামরিক বিমান মোতায়েন করা হয়েছে।
দাবানলে ব্রিটিশ কলম্বিয়া থেকে ১ হাজারের বেশী লোক পালিয়ে গেছে, আরো অনেকে এখনো নিখোঁজ রয়েছে।
ব্রিটিশ কলম্বিয়ার মেডিকেল এক্সামিনার’স অফিস বলেছে, গত সপ্তাহে ৭১৯ জনের মৃত্যু হয়েছে, যা পূর্ববর্তী মৃত্যুর তিনগুণ বেশী।

আপনি কি মনে করেন?

0 টি পয়েন্ট
উপনোট ডাউনভোট
উত্তর দিন

মন্তব্য করুন

সোমালিয়ায় চায়ের দোকানে জঙ্গি হামলায় ১০ জন নিহত

ফিলিপাইনে ৮৫ আরোহী নিয়ে সামরিক বিমান বিধ্বস্ত